৫ মার্চ, ২০১৪

পারমাণবিক ভর ও ভর সংখ্যার মধ্যে পার্থক্য

পারমাণবিক ভর ও ভর সংখ্যা কাছাকাছি সংখ্যা হলেও একই জিনিস নয়।
পারমাণবিক ভর ( বা পারমাণবিক ওজন, রসায়নে দুটিই বলা হয়, যদিও ফিজিক্সের ভাষায় বিদ্ঘুটে লাগছে! ) হচ্ছে, " কোন মৌলের প্রকৃতিতে প্রাপ্ত অ-তেজস্ক্রিয় আইসোটপগুলোর  গড় ভর"।
অন্যদিকে ভর সংখ্যা হল পরমাণূর নিউক্লিয়াসে উপস্থিত নিউক্লিয়নের সংখ্যা ( প্রোটন+ নিউট্রন)
পারমাণবিক ভরের হিসাবঃ
প্রত্যেকটি আইসোটপের প্রাচুর্যতার শতকরা থেকে এটা হিসাব করা হয়। এটা সাধারণত দশমিক বিশিষ্ট সংখ্যা হয়, একেই পর্যায় সারণীতে মৌলের সাথে লেখা হয়।
আইসোটপদের প্রাচুর্যতার পারসেন্টেজকে তাদের নিজ নিজ ভর দ্বারা গুণ করে প্রাপ্ত সমষ্টিই হচ্ছে পারমাণবিক ভর।
তাহলে,
পারমাণবিক ভর =  m1 × x1+ m2 × x2+m3 × x3+….+mn × xn
যেখানে ,
m1=   প্রথম আইসোটপের ভর
x1 =    প্রথম আইসোটপের প্রাচুর্যতা/ 100 ইত্যাদি
যেমন হাইড্রোজনের তিনটি প্রধান আইসোটপ 1H, 2H, এবং 3H। এদের প্রত্যেকের ভর সংখ্যা ভিন্ন।
প্রথমটিতে ১ টি প্রোটন আছে, কোন নিউট্রন নেই, তাই ভর সংখ্যা = (১+০)= ১
২য় টিতে ১ টি প্রোটন ও ১ টি নিউট্রন আছে। তাই ভরসংখ্যা (১+১) = ২।
একইভাবে ৩য় টির ভর সংখ্যা = ৩।
হাইড্রজনের মধ্যে ৯৯.৯৮ % হচ্ছে 1H, .০১৮% হচ্ছে 2Hএবং .০০২% হচ্ছে 3H।
উপরের সূত্রানুযায়ী হিসেব করলে উত্তর আসবে 1.0079 g/mol ।


প্রসঙ্গত, এখানে প্রাপ্ত পারমাণবিক ভর টি হল এক মোল পরিমাণ পদার্থের। তার মানে অ্যাভোগেড্রো সংখ্যক কণার বা 6.022×1023 গুলো কণার। একটি পরমাণূর ভর বের করতে হলে পারমানবিক ভরকে অ্যাভোগেড্রো সংখ্যা দ্বারা ভাগ দিতে হবে।

Abdullah Al Mahmud

লেখকের পরিচয়

আব্দুল্যাহ আদিল মাহমুদ। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিসংখ্যান বিভাগের শিক্ষার্থী। অনলাইনে লেখালেখির হাতেখড়ি হলেও বর্তমানে পাই জিরো টু ইনফিনিটি, ব্যাপন ও প্যাপাইরাসসহ বেশ কিছু ম্যাগাজিন ও পত্রিকায় নিয়মিত লিখছেন। শখ ও ভবিষ্যত পেশাগত টার্গেট জ্যোতির্বিদ্যা ও কোয়ান্টাম গ্র্যাভিটি নিয়ে গবেষণা। বিশ্ব ডট কমের কন্ট্রিবিউটর, সম্পাদক ও প্রকাশক।